অনুরাধাপুর রাজ্য

Everything Wiki থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
0.00
(one vote)

টেমপ্লেট:Infobox Former Country

অনুরাধাপুর রাজ্য (সিংহলি: টেমপ্লেট:Lang, অনুবাদ: Anurādhapura Rājadhāniya, তামিল: টেমপ্লেট:Lang), প্রাচীন শ্রীলঙ্কাসিংহলি জাতির প্রথম প্রতিষ্ঠিত রাজ্য ছিল। রাজ্যটির নামকরণ রাজ্যের রাজধানী শহরের থেকে করা হয়েছিল। খ্রিস্টপূর্ব ৪৩৭ খ্রিস্টাব্দে রাজা পাণ্ডুকভায়া দ্বারা প্রতিষ্ঠিত, রাজ্যের কর্তৃত্ব সারা দেশে বিস্তৃত ছিল, যদিও সময়ে সময়ে বেশ কয়েকটি স্বাধীন অঞ্চল আবির্ভূত হয়েছিল, যাদের সংখ্যা রাজ্যের শেষের দিকে আরও বৃদ্ধি পেয়েছিল। তা সত্ত্বেও, অনুরাধাপুরের রাজাকে অনুরাধাপুর যুগ জুড়ে সমগ্র দ্বীপের সর্বোচ্চ শাসক হিসেবে দেখা হতো।

অনুরাধাপুর যুগে বৌদ্ধধর্ম একটি শক্তিশালী ভূমিকা পালন করেছিল, যা রাজ্যের সংস্কৃতি, আইন ও শাসনের পদ্ধতিগুলিকে প্রভাবিত করেছিল।[প ১] রাজা দেওয়ানমপিয়া তিসার রাজত্বকালে বিশ্বাসের প্রচলন হলে সমাজ ও সংস্কৃতিতে বিপ্লব ঘটেছিল; এই সাংস্কৃতিক পরিবর্তন শ্রীলঙ্কায় বুদ্ধের দাঁতের অবশিষ্টাংশ আগমন ও তার শাসকদের পৃষ্ঠপোষকতা দ্বারা আরও শক্তিশালী হয়েছিল।[১]

রাজ্যের বেশিরভাগ সময় ধরে, দক্ষিণ ভারত থেকে আগ্রাসন একটি স্থায়ী হুমকি ছিল। দুতুগেমুনু, ওয়ালাগাম্বাধাতুসেনার মতো শাসকরা দক্ষিণ ভারতীয়দের পরাজিত করে এবং রাজ্যের নিয়ন্ত্রণ ফিরে পাওয়ার জন্য বিখ্যাত ছিলেন। দ্বিতীয় সেনা এর মতো অন্যান্য শাসকরা দক্ষিণ ভারতের মূল ভূখণ্ডে বাহিনী প্রেরণ এবং ৮৬২ খ্রিস্টাব্দে মাদুরাইকে পরাজিত করার মতো বেশ কিছু বিজয় অর্জনের জন্য উল্লেখযোগ্য। ইল্লান দক্ষিণ ভারতীয় প্রথম আক্রমণকারী ছিলেন, যিনি বিজিতপুরায় একটি যুদ্ধে জড়িয়ে পড়েছিলেন।

যেহেতু রাজ্যটি মূলত কৃষিভিত্তিক ছিল, ফলে সেচ কার্যক্রম নির্মাণ অনুরাধাপুর রাজ্যের একটি বড় অর্জন ছিল, যার উদ্দেশ্য ছিল শুষ্ক অঞ্চলে জল সরবরাহ নিশ্চিত করা ও দেশকে বেশিরভাগ ক্ষেত্রে স্বয়ংসম্পূর্ণ হতে সাহায্য করা। বেশ কয়েকজন রাজা, বিশেষ করে ওয়াসভামহাসেনা, বড় জলাধার ও খাল নির্মাণ করেছিলেন, যা অনুরাধাপুরা যুগ জুড়ে রাজারতা এলাকায় একটি বিস্তৃত ও জটিল সেচ ব্যবস্থার নেটওয়ার্ক তৈরি করেছিল। এই নির্মাণগুলি তৈরিতে ব্যবহৃত উন্নত প্রযুক্তিগত ও প্রকৌশল দক্ষতার একটি ইঙ্গিত প্রদান করে। সিগিরিয়ার বিখ্যাত চিত্রকলা ও কাঠামো; রুয়ানওয়ালিসেয়া, জেঠবনা স্তূপ ও অন্যান্য বড় স্তূপ; লোবামহাপায়া মত বড় ভবন; এবং ধর্মীয় কাজগুলি (অসংখ্য বুদ্ধ মূর্তির মতো) ভাস্কর্য নির্মাণে অনুরাধাপুর যুগের অগ্রগতি প্রদর্শনকারী ল্যান্ডমার্ক।

পদটীকা

টেমপ্লেট:Reflist

তথ্যসূত্র

টেমপ্লেট:সূত্র তালিকা
উদ্ধৃতি ত্রুটি: "প" নামক গ্রুপের জন্য <ref> ট্যাগ রয়েছে, কিন্তু এর জন্য কোন সঙ্গতিপূর্ণ <references group="প"/> ট্যাগ পাওয়া যায়নি, বা বন্ধকরণ </ref> দেয়া হয়নি

  1. Perera (2001), p.45


You are not allowed to post comments.